আমাকে কিল-ঘুষিসহ মারধর করেছে: সাবেক বিচারপতি মানিক

0
60
পুরোনো ছবি

(দিনাজপুর২৪.কম) রাজধানীর ফকিরাপুলে হামলার শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ তুলেছেন সুপ্রিম কোর্টের অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি এ এইচ এম শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক। আজ বুধবার বিকেলে এ হামলা হয়।

শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক গণমাধ্যমকে বলেন, ‘আমার ওপর হামলা করা হয় বিএনপির মিছিল থেকে। তখন আমার গাড়ি ভাঙচুর করা হয়। এ ছাড়া আমাকে, গাড়ির ড্রাইভার ও গানম্যানকে কিল-ঘুষিসহ মারধরও করেছে।’

এ সময় বিচারপতি শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক এই হামলার জন্য বিএনপিকে দায়ী করেছেন।

ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) মতিঝিল বিভাগের সহকারী কমিশনার (এসি) আবুল হাসান জানান, তারা ওই হামলার কথা শুনেছেন। পল্টন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ঘটনাস্থলে গেছেন। তিনি সেখানে গিয়ে বিস্তারিত জানতে পারবেন।

এ বিষয়ে পল্টন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সালাউদ্দিন মিয়া বলেন, ‘উনার গানম্যানের কাছ থেকে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে আমরা ঘটনাস্থলে যাই। ঘটনাটি পুলিশ হাসপাতালের সামনে ঘটেছে বলে জেনেছি। গাড়ির ড্রাইভার ও গানম্যানকে আসতে বলা হয়েছে এবং অভিযোগ দিলে আমরা অভিযোগ নেব।’

এদিকে বিচারপতি শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিকের গাড়িতে হামলার ঘটনায় তীব্র নিন্দা জানিয়েছে একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সভাপতি শাহরিয়ার কবির ও সাধারণ সম্পাদক কাজী মুকুল।

সংগঠনের পক্ষ থেকে তাৎক্ষণিক এক বিবৃতিতে বলা হয়- ‘আজ বিকেলে মৌলবাদ ও সাম্প্রদায়িকতাবিরোধী দক্ষিণ এশীয় গণসম্মিলনীর সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা বিচারপতি শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিকের ওপর বিএনপির সমাবেশ থেকে ন্যক্কারজনক হামলা করা হয়েছে। তিনি যখন গাড়িতে নয়া পল্টনের রাস্তা ধরে যাচ্ছিলেন, তখন বিএনপির সমাবেশ থেকে তার নাম ধরে আপত্তিকর স্লোগান দেওয়া হয় এবং তার ওপর শারীরিকভাবে হামলা করা হয়। একই সঙ্গে বিএনপির সন্ত্রাসীরা তার গাড়ি ভাঙচুর করে এবং গাড়ির চালককেও শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করে।’

‘একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির পক্ষ থেকে আমরা বরেণ্য মানবাধিকার নেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা বিচারপতি শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিকের ওপর হামলার তীব্র নিন্দা করছি। একই সঙ্গে হামলাকারীদের অবিলম্বে গ্রেপ্তারের দাবি জানাচ্ছি।’ -ডেস্ক রিপোর্ট

মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here