বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র থেকে উত্তর অঞ্চলের ১৬টি জেলায় বিদ্যুৎ সরবরাহ অব্যাহত

0
47

মোঃ আফজাল হোসেন (দিনাজপুর২৪.কম) দেশের উত্তর অঞ্চলের দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লাভিত্তিক তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহ অব্যাহত। কৃষি ও শিল্প খাতে উৎপাদন বৃদ্ধি। দেশের উত্তর অঞ্চলের দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লাভিত্তিক তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র থেকে উত্তর অঞ্চলের ১৬টি জেলায় কৃষি খাতে উৎপাদন ও শিল্পখাতে উৎপাদন বৃদ্ধি পেয়েছে। বাংলাদেশের উত্তর অঞ্চলের দিনাজপুরের পার্বতীপুর উপজেলার বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি সংলগ্ন ৫২৫ মেগাওয়াড কয়লা ভিত্তিক তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র থেকে উত্তর অঞ্চলের কৃষিকে এগিয়ে নিতে এবং কৃষির উৎপাদন বৃদ্ধি করতে ও শিল্প খাতের উৎপাদন এগিয়ে নিতে এই কেন্দ্র থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহ অব্যহত থাকায় প্রায় ১ কোটি হেক্টর জমিতে চলতি বছর ইরি বোর ধান চাষ করনের জন্য বিদ্যুৎ সরবরাহ অব্যহত রাখা হয়েছে। বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির উৎপাদিত কয়লা দিয়ে তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের বিদ্যুৎ উৎপাদন সচল রাখা হয়েছে। চাহিদা মাফিক বিদু্যুৎ সরবরাহ করা হচ্ছে। ২০১৬ ইং সালে ৩য় ইউনিট নির্মানের পর থেকে এই এলাকায় বিদ্যুৎ ঘটতি অনেকটা কমে গেছে। বর্তমান ২য় ও ৩য় ইউনিট থেকে বিদ্যুৎ উৎপাদন অব্যহত রয়েছে। যাতে কোনভাবে চলতি বছর ইরি বোর ধান চাষে না সৃষ্টি হয়। বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান প্রকৌশলী এসএম ওয়াজেদ আলী সরদার ২০২০ ইং সালে যোগদান করার পর তিনি প্রকৌশলী, কর্মকর্তা, কর্মচারী ও শ্রমিকদের কে নিয়ে অক্লান্ত পরিশ্রম করে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ৩টি ইউনিট পুরোপুরি সচল করেছেন। এছাড়া তিনি তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রে জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর শর্ত বর্ষ উপলক্ষে মুজিব কর্ণার, মসজিদ ও শহীদ মিনার সহ অসংখ্য উন্নয়নমূলক কাজ করেছেন। তিনি চলতি বছরের অক্টোবর মাসে প্রমশন নিয়ে এর চলে যান। চলে যাওয়ার আগে তিনি বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রকে সচল অবস্থায় উৎপাদন বৃদ্ধি করে চলেযান। চলে যাওয়ার আগে এলাকার বিভিন্ন সুধিজনদের সাথে ভালো সম্পর্ক রেখে চলেছেন। দায়িত্বভার পাওয়ার পর থেকে তিনি সতত্য ও নিষ্ঠার সাথে কাজ করে চলেছেন। এ জন্য বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের সকল প্রকৌশলী, কর্মকর্তা-কর্মচারী, শ্রমিক ও এলাকাবাসী তার ভূয়সী প্রসংশা করেছেন।

মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here