ব্যালটের চেয়ে ইভিএমের গতি অবশ্যই ধীর হবে: সিইসি

0
28
নির্বাচন ভবনে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছেন সিইসি কাজী হাবিবুল আউয়াল। ছবি: সংগৃহীত

(দিনাজপুর২৪.কম) প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেছেন, ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) গতি অবশ্যই ব্যালটের চেয়ে ধীর হবে। আজ মঙ্গলবার রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবনে সিসিটিভিতে রংপুর সিটি করপোরেশন (রসিক) নির্বাচন মনিটিরিংকালে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

রসিক নির্বাচনে অনেক জায়গায় ইভিএম হ্যাং করছে জানালে সিইসি বলেন, ‘অভিযোগটি অসত্য নয়। ইভিএমের গতি অবশ্যই ব্যালটের চেয়ে ধীর হবে। এমনও হতে পারে এটা ইভিএমের সেকেন্ড বা থার্ড জেনারেশন। আর নৌকার গতি, রকেটের গতি সমান নয়। ইভিএমে ফিঙ্গারপ্রিন্ট ম্যাচিং করিয়ে, বায়োমেট্রিক দিয়ে নিশ্চিত করা হয়। সেটা ব্যালটে হয়ে থাকে না।’

এ সময় ভোট পড়ার হারের বিষয়ে সিইসি বলেন, ‘কোথাও ৪৫ শতাংশ, কোথাও ৩৫ শতাংশ ভোট পড়েছে। গড়ে আমাদের এখানে ৪৫ শতাংশ ভোট কাস্টিং হয়ে গেছে।’

তিনি বলেন, ‘প্রচুর ভিড় আছে। যেহেতু ভোটটা ধীরে হয়, বাইরে ভিড় আছে এবং আগ্রহী ভোটারের সংখ্যা প্রচুর। আমরা বলে দিয়েছি বিকেল সাড়ে ৪টার মধ্যে যারা সীমানার মধ্যে থাকবে রাত যতটাই হোক তাদের সবার ভোট নিতে হবে। আমরা বিশ্বাস করি এই ভোট পড়ার হার অনেকটা বাড়বে।’

advertisement 4

সাংবাদিকরা জাতীয় পার্টির (জাপা) মেয়র প্রার্থীর অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে সিইসি বলেন, ‘জাপার একজনের ভোট দিতে অসুবিধা হয়েছিল। পরে তিনি ভোট দিয়েছেন। আমরা বলেছি প্রযুক্তিতে সমস্যা হতে পারে। অনেক প্রার্থী তাৎক্ষণিকভাবে হয়তো ভোট দিতে পারেননি। পরে দিয়েছেন।’

এদিন ইভিএমে ভোট দিতে গিয়ে ৩০ মিনিট অপেক্ষা করতে হয় জাপা মেয়র প্রার্থী মুস্তাফিজুর রহমান মোস্তফাকে। আজ সকাল ৮টা ৫০ মিনিটে আলমনগর কলেজপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোট দিতে যান তিনি। সে সময় ইভিএমে ত্রুটির কারণে ভোট দিতে না পেরে ভোট কক্ষ থেকে বেরিয়ে সাংবাদিকদের কাছে ক্ষোভ প্রকাশ করেন জাপা মেয়র প্রার্থী।

এর আগে বেলা ১১টার দিকে সিইসি কাজী হাবিবুল আউয়াল রসিক নির্বাচনে তেমন কোনো অভিযোগ পাননি বলে জানিয়েছিলেন।

রসিক নির্বাচনে মেয়র, কাউন্সিলর ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলরসহ মোট প্রার্থী ২৫১ জন। এদের মধ্যে ৯ জন মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এ ছাড়া ১১টি ওয়ার্ডে সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ৬৮ জন ও সাধারণ কাউন্সিলর প্রার্থী ১৮৩ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। -ডেস্ক রিপোর্ট

মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here